মোট দেখেছে : 24
প্রসারিত করো ছোট করা পরবর্তীতে পড়ুন ছাপা

বিশ্বকাপ ক্রিকেটের ট্রফি তৈরীর কাজ করছেন বেডফোর্ড

এবারের বিশ্বকাপ ক্রিকেটের ট্রফি তৈরীর কাজ চলছে। ট্রফির খোদাইয়ে কাজ করেছেন ডেভিড বেডফোর্ড নামের এক ব্রিটিশ। যিনি ৫০ বছর ধরে এই কাজ করছেন। আর এই ট্রফি খোদাইয়ের কাজে ব্যবহৃত হচ্ছে ২০০ বছরেরও পুরোনো কিছু যন্ত্রপাতি।


২০১৯ এর মে'তে ব্যাট-বলের ক্রিকেট উন্মাদনা, বিশ্বকাপের ১২তম আসর ইংল্যান্ডে। ১০ দলের লড়াই, সিঙ্গেল গ্রুপে টুর্নামেন্ট, ‌১৯৯২ বিশ্বকাপের সেই আমেজকে ফিরিয়ে আনার চেষ্টায় আইসিসি। 

স্বর্নালি ট্রফিতেও ভিন্নতায় চোখ ক্রিকেট নিয়ন্ত্রক সংস্থার। ১৯৯৯ সাল থেকে এই ট্রফিই স্টিভ ওয়াহ, রিকি পন্টিং, ধোনি আর মাইকেল ক্লার্করা উচিয়ে ধরেছেন। ৬৫০ মিলিমিটার উচ্চতা আর ১১ কিলোগ্রাম ওজনের ট্রফিতে, ক্রিকেটের তিনটি মৌলিক বিষয়,

ব্যাটিং-বোলিং আর ফিল্ডিং উপস্থাপন করা থাকবে। ট্রফি ডিরেক্টর স্টিফেন ওটোউল বলেন, "ক্রিকেটের সংশ্লিষ্ট বিষয়গুলোর সাথে স্ট্যাম্প, আর মানচিত্র তুলে ধরার চেষ্টা করেছি। কাজটা খুবই সাবধানে করতে হয়। আর অবশ্যই ক্রিকেটকে ভালবাসতে হবে।" 


ডিজাইন ম্যানেজার জো ক্লার্ক বলেন, "প্রথমে খালি হাতে আমরা ডিজাইন করেছি। এরপর, ডিজাইন অনুযায়ী সবকিছু কম্পিউটারে যাচাই করেছি। অবশ্যই এবারের বিশ্বকাপের ট্রফিতে ভিন্নতা কিছু চোখে পড়বে সবার।"

ট্রফির উপরের অংশে যে গ্লোব থাকছে, সেখানে নানা রকম খোদাইয়ের কাজ করছেন ডেভিড বেডফোর্ড। ১৯৬৫ সাল থেকেই এই কাজে সংশ্লিষ্ট তিনি। ডেভিড বেডফোর্ড বলেন, "৫০ বছর ধরে একাজ করছি। এটা আমার জীবনের অংশ। আমার সহধর্মিনী বলেন,

আমি হয়তো জীবনের শেষ মুহুর্ত পর্যন্ত একাজই করে যাবো।" বেডফোর্ডের ব্যবহার করা কোনো কোনো যন্ত্রাংশ ২০০ বছরের পুরোনো। খোদাই কাজে, এই যন্ত্রপাতি নিয়েই ফুটিয়ে তুলছেন ট্রফির বৈচিত্রতা।

আরো দেখুন

আরও সংবাদ